• শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:২৪ অপরাহ্ন
  • Bengali Bengali English English Nepali Nepali Vietnamese Vietnamese

নারীই বেশি মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহার করে

রিপোর্টার
আপডেট : শনিবার, ২৮ আগস্ট, ২০২১

করোনা মহামারির এ সময়ে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার কারণে ভিডিও কল, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমের ব্যবহার এবং অনলাইন ভিডিও দেখার পরিমাণ বেড়েছে। করোনাকালীন প্রায় ৬২ শতাংশ নারী মোবাইল ইন্টারনেট গ্রাহকের ব্যবহারের পরিমাণ বেড়েছে বলে উঠে এসেছে জিএসএমএ মোবাইল জেন্ডার গ্যাপ রিপোর্ট ২০২১ থেকে। সমীক্ষায় আরও দেখা গেছে, বাংলাদেশে প্রতি সপ্তাহে মোবাইলে ফ্রি ভিডিও দেখেন এমন নারী ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৯ থেকে ২০ শতাংশে পৌঁছেছে ২০২০ সালে।

এছাড়া মোবাইল ইন্টারনেট সম্পর্কে নারীদের মধ্যে সচেতনতার পরিমাণ গত কয়েক বছরে অভাবনীয় হারে বেড়েছে। সমীক্ষা অনুযায়ী, মোবাইল ইন্টারনেট সম্পর্কে নারীদের ২০২০-এ সচেতনতার হার ছিল প্রায় ৬৬ শতাংশ, যা ২০১৭ সালে ছিল ৩৪ শতাংশ। অর্থাৎ কয়েক বছরে বেড়েছে ৩২ শতাংশ। একই সময়ে পুরুষদের মধ্যে মোবাইল ইন্টারনেট সম্পর্কে সচেতনার হার বেড়েছে ২৫ শতাংশ। জিএসএমএ জানিয়েছে, পুরুষদের মাঝে ২০২০-এ সচেতনতার হার ছিল ৭৫ শতাংশ, যা ২০১৭ সালের ছিল ৫০ শতাংশ। স্বল্প পরিসরে আটটি নিু ও মধ্যম আয়ের দেশে গত ৪ অক্টোবর ২০২০ থেকে ৮ জানুয়ারি ২০২১-এর মধ্যে এ সমীক্ষাটি পরিচালনা করা হয়েছে।

সমীক্ষা প্রতিবেদন থেকে পাওয়া তথ্যে জানা গেছে, নারীদের মধ্যে মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারের মাত্রা গত বছরের তুলনায় মাত্র তিন শতাংশ বেড়ে ১৯ শতাংশ হয়েছে। যেখানে পুরুষদের মধ্যে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী বেড়েছে ৩৩ শতাংশ।

মহামারিতে নারীদের ইন্টারনেট ব্যবহারের পরিমাণ বাড়লেও স্মার্টফোনের মালিকানা বাড়েনি। ২০১৯ সালে ২১ শতাংশ প্রাপ্তবয়স্ক নারীর স্মার্টফোন ছিল। ২০২০ সালেও সংখ্যাটি অপরিবর্তিত রয়েছে। অপরদিকে ২০২০-এ প্রাপ্তবয়স্ক পুরুষদের মধ্যে ৩৯ শতাংশ স্মার্টফোন ব্যবহার করছেন। ২০১৯ এ সংখ্যাটি ছিল ৩৬ শতাংশ।

২০২০-এ মাত্র ১৪ শতাংশ নারী মোবাইলের মাধ্যমে অর্থ লেনদেনের অ্যাকাউন্ট ছিল এবং পুরুষদের মধ্যে এই হার ৪০ শতাংশ। তবে এ হার ভারত ও পাকিস্তানের চেয়ে উল্লেখযোগ্য পরিমাণে বেশি। দেশ দুটিতে যথাক্রমে চার ও পাঁচ শতাংশ প্রাপ্তবয়স্ক নারী এ ধরনের অ্যাকাউন্টের গ্রাহক।

 

সোর্স: যুগান্তর


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরো সংবাদ